ঢাকাবুধবার, ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

৩৪তম জন্ম বার্ষিকীতে টিআইসিতে বোধনকে বিভিন্ন ব্যক্তি-সংগঠনের শুভেচ্ছা

পরম বাংলাদেশ
জানুয়ারি ১০, ২০২১ ৪:২৩ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

চট্টগ্রাম: ‘আঁধার ভেঙে আলোর বুনন’ স্লোগানে পথচলার ৩৪ বছর পূর্ণ করলো বোধন আবৃত্তি পরিষদ।

শনিবার (৯ জানুয়ারি) বিকালে এ উপলক্ষে থিয়েটার ইনিস্টিটিউট চট্টগ্রামের (টিআইসি) গ্যালারি হলে ‘বোধনের চৌত্রিশ’ শিরোনামে কথা- কবিতা- গানের আয়োজন করা হয়। স্বাস্থ্যবিধি মেনে অনুষ্ঠানে নতুন-পুরাতন সদস্যদের উপস্থিতি মিলনমেলায় পরিণত হয়। প্রদীপ প্রজ্জ্বলন ও নানা রকম ডিসপ্লেতে উৎসবের আমেজ তৈরি হয় টিআইসি প্রাঙ্গণ।

অপর্ণা চৌধুরী, বাবলী কারণ ও অনন্যা পালের সমবেত গানে আয়োজন শুরু হয়। এরপর প্রারম্ভিক কথামালায় অংশ নেন কবি জিন্নাহ চৌধুরী, বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আবৃত্তি শিল্পী রাশেদ হাসান, মাহফুজুর রহমান।

স্বাগত বক্তব্য রাখেন বোধনের সহ সভাপতি সুবর্ণা চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক গৌতম চৌধুরী।

এ সময় আমন্ত্রিত অতিথিরা বলেন, ‘ব্যাপক কর্মযজ্ঞের কারণেই বোধন আজ দেশের পুরোধা সংগঠনে পরিণত হয়েছে। আগামীতেও বোধন মানুষের বোধকে সমৃদ্ধ করুক এটাই সবার প্রত্যাশা থাকবে।’

সঞ্জয় পালের সঞ্চালনায় আবৃত্তি পরিবেশন করেন বুলবুল মুৎসুদ্দী, বিপ্লব কুমার শীল, পল্লব গুপ্ত, জসিম চৌধুরী, উম্মে ইকরা, সুচয়ন সেনগুপ্ত, ঈশা দে, অর্ক ভৌমিক, সৃষ্টি ভৌমিক, শ্রেয়া চৌধুরী, অংকিতা ভট্টাচার্য।

অনুষ্ঠানের ফাঁকে শুভেচ্ছা জানান বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সহ সভাপতি রিয়াজ হায়দার, সংগঠক সুনীল ধর, আবৃত্তি শিল্পী হাসান জাহাঙ্গীর, বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের চট্টগ্রাম অঞ্চলের সাংগঠনিক সম্পাদক দেবাশীষ রুদ্র, সাজ্জাত হোসেন, সুচরিত দাশ খোকন, জিটিভি চট্টগ্রাম ব্যুরো প্রধান অনিন্দ্য টিটো।

পরে সংগীত পরিবেশন করেন কান্তা দে, রিষু তালুকদার, শোভন, কেকা দৃষ্টি শর্মা, পূর্ণা দাশ, সঞ্জয় পাল, অর্পণা চৌধুরী, বাবলি কারণ, অনন্যা পাল। বাঁশি ও তবলায় রাগ পরিবেশন করেন শোভন ও প্রিয়ম চক্রবর্ত্তী।

অনুষ্ঠানে বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে বোধনকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানো হয়।

মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে বুকে ধারণ করে সর্বস্তরের মানুষকে ‘আঁধার ভেঙে আলোর বুনন’ এ সম্পৃক্ত করে বোধন এগিয়ে যেতে চায় সূর্যোদয়ের দিকে- এমনই প্রত্যাশা সবার।

উল্লেখ্য, ১৯৮৭ সালের ৯ জানুয়ারি স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলন যখন তুঙ্গে তখন রাজপথে লড়াকু কয়েকজন আবৃত্তি কর্মীর উদ্যোগে জন্ম হয়েছিল বোধনের। ৩৪ বছরের দীর্ঘ এই পথচলায় বোধন আবৃত্তি চর্চায় এনেছে বৈচিত্র্য, পরিবর্তন এনেছে আবৃত্তির গুণগত মানে এবং সাংগঠনিক চর্চায় যুক্ত করেছে নতুন নতুন মাত্রা।

প্রেস নিউজ

Facebook Comments Box