ঢাকাশুক্রবার, ৭ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
আজকের সর্বশেষ সবখবর

ভোরে নির্জন স্থানে পথচারী টার্গেট করে সর্বস্ব ছিনিয়ে নেয় তারা

নিজস্ব প্রতিবেদক
মার্চ ২১, ২০২১ ১:৪৪ অপরাহ্ণ
Link Copied!

চট্টগ্রাম: মো. বাচ্চু (৩৭) একজন সিএনজি চালক। তিনি প্রতিদিনের মত ভাড়ায় চালিত সিএনজিটি ঈদগাঁহ রঙ্গীপাড়া গ্যারেজে রেখে অপর একটি সিএনজি করে বোস ব্রাদার্স নামের দোকানের সামনে নামেন। তিনি সেখান থেকে হেঁটে বাসায় যাওয়ার পথে রোববার (২১ মার্চ) ভোর অনুমানিক ছয়টার দিকে কোতোয়ালীর পুরাতন টেলিগ্রাফ রোডের বন বিভাগের সামনে মনিন্দ্র ভবনের নিচে পাকা রাস্তার উপর পৌঁছালে আব্দুল ইমাম হোসেন জুবায়ের প্রকাশ চক্কু (২০), রাজু চন্দ্র দে (২০), মো. আশিক (২০) ইকবাল (২০) হঠাৎ মো. বাচ্চুর সামনে গিয়ে তার পথরোধ করে ভয়-ভীতি ও ত্রাস সৃষ্টি করে তাকে এলোপাতাড়ী কিল ঘুষি মারে। এক পর্যায়ে তার মানি ব্যাগ, এক হাজার ২০০ টাকা, সিএনজির চাবি এবং তার ডান হাতে থাকা একটি ১৫ হাজার টাকা দামের মোবাইল সেট জোর করে ছিনিয়ে নিয়ে পালিয়ে যান তারা। লানোর সময় বাচ্চু ছিনতাইকারী বলে চিৎকার শুরু করেন। এ সময় পাশে থাকা ডিউটিরত টহল পুলিশের ইনচার্জ এসআই মো. ইয়াসিন তার ফোর্সের সহায়তায় চক্কু ও রাজু চন্দ্র দেকে আটক করে। আর অপর দুজন দ্রুত পালিয়ে যায়।

এ সময় চুক্কর কাছ থেকে ছিনতাইকৃত মোবাইলটি উদ্ধার করে পুলিশ।

পরে কোতোয়ালী থানার এসআই মো. ইয়াসিন দুপুর দেড়টার দিকে কোতোয়ালীর বলুয়ারদিঘীর পাড়ে মো. আশিককে তার নিজ বাসা হতে আটক করে।

কোতোয়ালী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ নেজাম উদ্দীন জানান, নন্দনকানন বোস ব্রাদার্স এলাকাসহ মহানগর এলাকায় ভোরে নির্জন স্থানে কোন পথচারী পেলে তাকে টার্গেট করে তার কাছ থেকে নগদ টাকা, মোবাইল ও মূল্যবান জিনিসপত্রসহ যা কিছু থাকে, সব ছিনিয়ে নেয় বলে স্বীকার করেছে আটককৃত তিন জন। এভাবে তারা বেশ কয়েকবার এ ধরনের অপরাধ করেছে বলে জানায়।

Facebook Comments Box