শিরোনাম
প্রধানমন্ত্রীর সহায়তা তহবিলে এক কোটি টাকা অনুদান দিল চট্টগ্রাম চেম্বার প্রাথমিক বিদ্যালয় ও কিন্ডারগার্টেনের ছুটি বাড়ল ৩০ জুন পর্যন্ত নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলাম’র আইটি বিশেষজ্ঞ গ্রেফতার চট্টগ্রামে সাদার্ন ইউনিভার্সিটিতে দুই মাসব্যাপী আন্তঃবিভাগ বির্তক প্রতিযোগিতা শুরু নাভানাসহ সীতাকুণ্ডের সব কারখানায় ঈদুল আজহার আগে শ্রমিকদের বেতন-বোনাস দাবি পরিবেশ বিষয়ক গল্প : মন পড়ে রয় । নাজিম হোসেন শেখ পিএইচপি অটো মোবাইলসের তৈরি অ্যাম্বুলেন্স উপহার পেল চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতাল সোতোকান কারাতে স্কুল চট্টগ্রামের কারাতে বেল্ট প্রতিযোগিতা সম্পন্ন চট্টগ্রামের পাহাড় অপরাজনীতি, অপেশাদার আমলাগিরির শিকার হাটহাজারী নাজিরহাট কলেজে বৃক্ষ রোপণ কর্মসূচির উদ্বোধন
রবিবার, ১৩ জুন ২০২১, ০৯:১১ পূর্বাহ্ন

বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্র: একটা পরিপূর্ণ প্যাকেজ ‘ভাবিয়ত্রী’

পরম বাংলাদেশ প্রতিবেদন / ৪৭ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : সোমবার, ১০ মে, ২০২১

চট্টগ্রাম: বাংলাদেশ টেলিভিশন (বিটিভি) চট্টগ্রাম কেন্দ্র রবীন্দ্রজয়ন্তীর টেলিফিল্ম ‘ভাবিয়ত্রী’ যেন ভাবনায় ফেলে দিল। যে ধারায় চলছে টেলিফিল্ম, তার এক ঘরানায় বাণীব্রত গল্পের যে মেসেজের ঠেলায় সব বিনোদন চৌপাট হয়ে যায়। পাল্টা ঘরে বিনোদনের এমন হুল্লোড় যে, টেলিফিল্মের গল্পের মানে-মাথা খোঁজা বৃথা। ভাবা যায়, এমন একটা গল্প পরিচালক অরিন্দম মুখার্জী বিংকু করলেন, যেখানে রবীন্দ্রনাথের ‘প্রয়োজনটা প্রতিটা দৃশ্যের সঙ্গে প্রায় পরতে পরতে মিলিয়ে দিলেন আধুনিক জীবনের সঙ্গে। সেরা মুহূর্ত, ওঠা ও পড়া!

রবীন্দ্রনাথকে নিয়ে বেশ কিছু অপূর্ব কাজ হয়েছে পশ্চিমবঙ্গে। শুধু দুটোর কথা বলব- ‘বাল্মিীকি প্রতিভা’, ‘মুক্তধারা।’ ভাবিয়ত্রীতে ভাবনার খোঁজ পাই- এ তিন চরিত্রদের সাফল্য কামনায় আমরা শ্বাস আগলে বসে থাকি।

ভাবিয়ত্রীতে আমরা শেষ মুহূর্তগুলোয় সাফল্য চাই পরিচালিক ইসমাইলের। কারণ? তার মধ্যেই কবিকে নিছক কবি হয়ে ওঠা এবং আধুনিক জীবনের সাথে মিলনের একটা নতুন দিশা দেখানোর চ্যালেঞ্জ নিয়েছিলেন বন্ধুদের নিয়ে নাটক মঞ্চস্থ্য করার ! মেসেজের ভারে এমন প্রকল্পের দফারফা হয়ে যাওয়ার কথা। তা তো হয়ইনি। বরং থ্রিলার হিসাবে গড়া কাহিনীতে শেষ রিল অবধি বাঁধা সাসপেন্স, সংলাপে-সংলাপে ধরানো ব্যক্তিত্ব সংঘাত ও হিউমার, রবীন্দ্রনাথ ও অন্যান্য সুরকে আবহ ও গানে প্রক্ষেপ করে পুরো টেলিফিল্মটাই যেন একটা নাটক হিসেবে প্রস্তাব করা হয়েছে। একটা পরিপূর্ণ প্যাকেজ।

ফলে কাহিনী যত গড়াল তার কেন্দ্রে চলে এল রেহান ও আসমা । সে চরিত্রে অভিনয় করা ইউনুস রানা ও বিবি আয়সাকে কিছুতেই আলাদা করা যায় না। কী জিল্লুর কী রবীন্দ্রনাথ থেকে। কারণ জিল্লুরের সেই নাটক নির্দেশনাই জানিয়ে দিচ্ছিলেন রবীন্দ্রনাথে মূর্ত চরিত্রগুলো। বলতে হয় ‘কড়ি ও কোমল’ হল টেলিফিল্মের ধরা জীবনের মধ্যে জীবন। গল্পে কড়ি ও কোমলের সম্পর্ক প্রেমের দিকে এগোয় এবং তা খুবই বিশ্বাসযোগ্য ঠেকে।

‘ভাবিয়ত্রীর’র পোক্ত চিত্রনাট্যে নিষ্ক্রমণের প্রস্তুতি আছে। তবে শেষ অবধি মুক্তি? রবীন্দ্রনাথের প্রয়োজনীতাই কাহিনী ও জীবনের বিষয় হয়ে ওঠে। ছোটখাটো চরিত্রেরও বিবর্তন দেখিয়েছে, দৃশ্যের গ্রন্থনা, কাহিনীর গতি ও পরিণতি নিয়ন্ত্রণ করেছে এবং গল্পের সঙ্গে সঙ্গে কড়ি ও কোমল চরিত্রের চিত্রায়ন অরিত্র ও মুক্তা নতুন হলেও পর্দায় ভাসিয়েছে। যাদের মধ্যে প্রেম ও প্যাশন মিশেছে, ঠোঁটে গানও আছে আর তার পরেও অবিশ্বাস্য রকম বাস্তব।

এমন চিত্রনাট্যকে যে লয়কারি ও ছন্দে এবং দৃশ্যের বিস্তারে ক্যামেরায় তোলা সিনেমাটোগ্রাফারের প্রতিটা দৃশ্যের শুরু ও শেষ লং শর্ট চোখে ধাক্কা লাগে যে কাজকে আর একটু নিপুণ নিটোল করতে পারত আবহমাদ রিয়াজের সম্পাদনা। আর সঙ্গীত? রবীন্দ্র সঙ্গীতের সুরারোপ গান ও আবহের প্রয়োগে প্রায় অপেরাটিক করে তুলেছে। একটা প্রধানত ইনফরমেটিভ গল্পকে সহনীয়, এমনকী আরামপ্রদ করেছে।

বন্ধু অনন্ত আর শ্বাশ্বত শুভ যত রবীন্দ্রনাথকে অপছন্দই করুক নাট্যনির্দেশক বন্ধু তৌফিকই নাটকের চাকাটা প্রথম ঘোরাতে শুরু করে। বিশ্ববিদ্যালয়ে সাহিত্য নিয়ে পড়া বিশুদ্ধ বাঙালি। বাংলা সাহিত্য নিয়ে পড়াশোনা করছে। নেতা হিসেবে শ্বাশ্বত শুভ সুন্দর একটা ভূমিকায় এলেন। বদমাইশি, প্যাঁচপয়জারি টনটনে হিউমার মিশিয়ে যারা একেকটি প্রত্নদ্রব্যই যেন সারাক্ষণ পাবলিকের জীবন হাল্লাক করে দিয়েছে। বন্ধু অন্তর ও নাট্য অভিনেতা রাকিবের চরিত্রটির উতোরচাপান একটা সিকোয়েন্সকে রস জুগিয়েছে। বাবা সুনিল ধরের অভিনয় সুন্দর ও পরিপূর্ণ।

দর্শক বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্র থেকে ‘ভাবিয়ত্রী’র মত আরো ভালো কিছু আশা করে পরিচালক অরিন্দম মুখার্জি বিংকুর কাছ থেকে।

add

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ