ঢাকাসোমবার, ২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
আজকের সর্বশেষ সবখবর

বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্রে চট্টগ্রাম রিলেটেড সবকিছু ফোকাস করতে চাই

মোহাম্মদ আলী
এপ্রিল ২৬, ২০২১ ৬:০৬ অপরাহ্ণ
Link Copied!

চট্টগ্রামের টিভি নাটকে বর্তমান সময়ের আলোচিত নাম বাংলাদেশ টেলিভিশন (বিটিভি) চট্টগ্রাম কেন্দ্রের প্রযোজক অরিন্দম মুখার্জি বিংকু। তিনি একজন বাঙালি, বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত অভিনেতা, নাট্য নির্দেশক, লেখক ও তথ্যচিত্র নির্মাতা। অরিন্দম মুখার্জি বিংকু ২০১৯ সালের ১ এপ্রিলে বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্রে যোগদান করেন। তার যোগদানের ফলে এ কেন্দ্রে শুরু হয় এক নতুন অধ্যায়। কাজ পাগল বিংকু একের পর এক চমক উপহার দিতে থাকেন বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্রকে। স্থানীয় প্রবীণ ও নবীন থিয়েটার কর্মীদের নিয়ে কাজ করতে থাকেন। তিনই প্রথম প্রযোজক যিনি বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্রে হতে প্রথম মেগা ধারাবাহিক নাটক (৫২ পর্ব) নির্মাণ করেন। সমসাময়িক বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আজ পরম বাংলাদেশের মুখোমুখী হয়েছেন তিনি। সাক্ষাৎকার নিয়েছেন মোহাম্মদ আলী।

পরম বাংলাদেশ: আপনিই প্রথম প্রযোজক যিনি বাংলাদেশ টেলিভিশন চট্টগ্রাম কেন্দ্রে হতে প্রথম টেলিভিশন ধারাবাহিক নির্মাণ করেছেন। বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্রে আপনার শুরুটা কেমন ছিল?

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: সত্যি দেখতে দেখতে পার করে ফেললাম দুই বছর প্লাস। শুধু ধারাবাহিক নয়, টেলিফিল্মের শুরু, বাচ্চাদের নিয়ে প্রতি মাসে রেগুলার দুইটা করে টেলিফিল্মের কাজ….। শুরুতে তেমন ঝামেলা পোহাতে হয়নি। একটা নতুন জায়গা, নতুনদের নিয়ে কাজ করছি, একটা পরিবারের মত। বেশ মজা পাচ্ছি। তবে সবাই আন্তরিক। তাদের সহযোগিতায় সেই ক্ষেত্রে সমস্যা হয়নি। আসলে এখানে তো সবই নতুন, মিডিয়া বলতে বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্র। সেক্ষেত্রে অমার অভিনেতারাই অভিনয়ের পাশাপাশি অভিনয়ের বাইরে আমার জন্য প্রোডাকশান ভাল করার জন্য যথেষ্ট সহযোগিতা করে থাকেন। যেটা হয়েছে সরকারী অফিসের কাগজপত্র আমি বুঝি না। যার জন্য কিছু জটিলতা তো হচ্ছে। কিন্তু বর্তমান জিএম স্যারের অত্যান্ত আন্তরিকতায় ও সহযোগিতায় উৎরে গেছি, যাচ্ছি

পরম বাংলাদেশ: আপনি পেশায় একজন তথ্যচিত্র নির্মাতা। আপনার পরিকল্পনা ও প্রয়োজনায় ‘বাঙালী বিশ্বময়’ অনুষ্ঠানটির জন্য আপনি অধিক পরিচিত ছিলেন।

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: তথ্যচিত্র আটকে রাখলে চলবে না ভাই…আমি সৃষ্টিশীল সব কাজই করি। আসলে বাঙালি বিশ্বময় অনুষ্ঠানটি ছিল গাজি টিভির আইডিনটিটি…। কারণ তখন গাজি টিভির স্লোগান ছিল বিশ্বময় বাংলাদেশ, যদিও পরের দিকে সেই স্লোগান পাল্টে যায়, তখন আমি চিন্তা করে দেখলাম: সামাজিক মাধ্যমে কাজ করছি, আমার তো কিছু দায়বদ্ধতা আছে। আমার কাজের প্রভাব সমাজের উপর কিভাবে পড়ছে.. আমি কি ধরনের সংস্কৃতি পৌঁছাচ্ছি আমার পরবর্তী প্রজন্মের কাছে.. সেই ভাবনা থেকেই অনুষ্ঠানটির পরিকল্পনা; বায়োগ্রাফি ঠিক নয়, বাংলাদেশে বেড়ে ওঠা বিদেশে স্ব স্ব ক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠিত।

পরম বাংলাদেশ: বাংলাদেশের মুক্ত চিন্তার আন্দোলনের সাথে আপনি জড়িত ছিলেন।

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: আমি নিরন্তর চর্চার মাধ্যমে উৎকর্ষ সাধন করি। রীতি নীতি বিদ্যা বুদ্ধি দিয়ে সেগুলো নিয়ন্ত্রণ করি। আমি ভাবি, ভাবতে খারাপ লাগে না…। তবে সেটা মুক্ত চিন্তা কি না বলতে পারব না…। হয়তো আমার মত করে চিন্তা করি…। এ জগৎ দয়াবান না হলেও, মন আমার দয়াবান। জগৎ বাস্তবে কিছু না দিলেও, মনের কল্পনায় সবই পাই….হা হা হা হা।

পরম বাংলাদেশ: অভিনয় শিক্ষাদান বিষয়ক ইনস্টিটিউটে আপনি শিক্ষকতাও করেছিলেন।

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: হ্যা, একটা হাওড়ায় তুলশী চক্রর্তী ফিল্ম এন্ড টেলিভিশন টেকনিশিয়ান্স ইনস্টিটিউট আর বাংলাদেশ বশির আহমেদ ভাইযের ইনস্টিটিউট।

পরম বাংলাদেশ: আপনি একটা সময়ে অভিনয় করতেন। এখন নাটক প্রযোজনা করছেন। কোনটা বেশি উপভোগ্য আপনার কাছে?

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: দুটোই, একটা নিজের কথা বলি, আরেকটাতে ডিরেক্টারের কথা বলে দেই..।

পরম বাংলাদেশ: প্রযোজনার ক্ষেত্রে বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্রের জেনারেল ম্যানেজার (জিএম) নিতাই কুমার ভট্টাচার্যের কাছ থেকে কেমন সাড়া/সাপোর্ট পাচ্ছেন?

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: খুব ভাল ভাই। উনি আন্তরিক ভাবেই চান ভাল কিছু হোক, যার ফল আপনারাই দেখছেন, উনি বোঝেন, তা না হলে ৬৯ এর চিঠি বা সমসাময়িক বা ধরুন মহাকাব্য হত না এবং স্ক্রীনেও অনেক পরিবর্তন এসেছে। এটাও হয়তো আপনি আমার সাথে এক মত হবেন।

পরম বাংলাদেশ: বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্রে নাটক প্রযোজনা করতে গিয়ে কি কি সমস্যার/চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন হয়েছেন/হচ্ছেন?

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: ভাই সমস্যা কোথায় নেই, সব জায়গাতেই সমস্যা। এর মধ্যে থেকেই ওভার কাম করতে হবে। চ্যালেঞ্জ করার কিছু নেই, সবাই মিলে কাজ করছি একটা পরিবারের মত।

পরম বাংলাদেশ: এসব চ্যালেঞ্জ কিভাবে মোকাবেল করেছেন/করছেন?

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: আমার চ্যালেঞ্জ একটাই , চট্টগ্রামের এমন কোন শিল্পী থাকবে না, যে বলবে আমার সাথে কাজ করেনি। এখানে চ্যালেঞ্জ করার মত পরিস্থিতি এখনো আসেনি রে ভাই।

পরম বাংলাদেশ: এখানকার শিল্পীদের সম্পর্কে আপনার মূল্যায়ন কি?

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: খুব ভাল। এখানে এমন শিল্পী আছে, যারা সুযোগ পেলেই বুঝিয়ে দেবেন নিজেদের জাত।

পরম বাংলাদেশ: আপনার প্রযোজনায় নির্মিত নাটকগুলো নিয়ে কেমন সাড়া পাচ্ছেন?

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: ভাল মন্দ মিলে আছে…। আপনারা ভাল বলতে পারবেন।

পরম বাংলাদেশ: বিটিভি চট্টগ্রাম কেন্দ্রের প্রযোজক হিসেবে আপনার ভবিষ্যৎ কোন পরিকল্পনা আছে কি?

অরিন্দম মুখার্জী বিংকু: চট্টগ্রাম কেন্দ্রে চট্টগ্রাম রিলেটেড সবকিছু ফোকাস করতে চাই। যেমন একুশের কবি মাহাবুবুল আলম চৌধুরীর কথা কোথাও কোন সিনেমা তো দুরের কথা টেলিভিশনের টক শো ছাড়া আসেনি, চট্টগ্রামের আইস ফ্যাক্টরীর ৭১ এর ঘটনা এসেছে। আমি এনেছি টেলিফিল্মের গল্পে। এ রকম আরো আছেন, এদের নিয়েই কাজ করার ইচ্ছে। শিশুদের নিয়ে কেউ কাজ করতে চায় না…! আমি শুরু করেছি। তাতে করে শিশুদের একটা ভিত তৈরি হচ্ছে। কে বলতে পারে এদের মধ্যে কেউ হয়ে উঠতে পারে আগামীর স্টার।

Facebook Comments Box