বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২২, ১২:১৮ অপরাহ্ন

বার্ষিক ৫ শতাংশ ইনক্রিমেন্ট স্থগিতের মালিকদের আবদার মানবে না শ্রমিক শ্রেণি

পরম বাংলাদেশ
  • প্রকাশ : মঙ্গলবার, ২৯ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ৩৮০ Time View

চট্টগ্রাম: গার্মেন্টস মালিক সমিতিগুলোর কোন অন্যায় আবদারে সায় না দিতে সরকারের প্রতি দাবি জানিয়েছেন চট্টগ্রাম গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশন সম্মিলিত পরিষদের কার্য নির্বাহী কমিটির নেতৃবৃন্দ।

সোমবার (২৮ ডিসেম্বর) বিকাল তিনটায় অনুষ্ঠিত কমিটির এক সভায় এ দাবি জানানে হয়।

অস্থায়ী কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত এ সভা সংগঠনের সভাপতি শেখ আব্দুল মান্নানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় নেতৃবৃন্দ ২০২০ সালে করোনা সংকটের মধ্যে শ্রমজীবী মেহনতি মানুষের নানা সমস্যা ও কষ্টের কথা উল্লেখ করে বলেন, ‘এক দিকে যেমন জীবনের ঝুঁকি নিয়ে শ্রমিকরা শিল্পের চাকা সচল রেখেছেন, অন্য দিকে কম মজুরি ও নানা সমস্যা অতিক্রম করে কোনভাবে শ্রমিকরা টিকে থাকার লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন। গত নয় মাসে হাজার হাজার শ্রমিক চাকরিচ্যুত হয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছেন। এর মধ্যে দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতির কারণে শ্রমিকদের স্বাভাবিকভাবেই আর্থিক অসচ্ছলতা বেড়েছে। পাশাপাশি কারখানাগুলোতে গাড়ি সুবিধা হ্রাস, কাজের অতিরিক্ত চাপ, মেটারনিটি সুবিধাসহ অন্য আইনানুগ পাওনাদি থেকে শ্রমিকরা বঞ্চিত হচ্ছে।’

সভায় নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, ‘শ্রমিকরা যখন এই দুঃসময়ে ঘুরে দাঁড়ানোর প্রত্যয় নিয়ে কাজ করে যাচ্ছে, তখন হঠাৎ করে মালিক সমিতিগুলোর শ্রমিকদের বার্ষিক পাঁচ শতাংশ ইনক্রিমেন্ট স্থগিত করার জন্য শ্রম মন্ত্রনালয়ে আবেদন করেছেন।এ সংবাদটি শ্রমিকদের ভীষণ মর্মাহত ও ব্যতীত করেছে। শ্রমিকরা মৃত্যুকে আলিঙ্গন করে সংকটকালীন দেশের অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে কাজ করছে আর সেই সময় মালিক সমিতিগুলোর অন্যায় আবদার শ্রমিক সমাজ কোন বিবেচনায় মেনে নিতে পারে না।’

সভায় শ্রমিকদের অধিকার হরণের অপচেষ্টার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে নেতৃবৃন্দ বর্তমান সরকারকে শ্রমিক বান্ধব সরকার আখ্যা দিয়ে মালিক সমিতিগুলোর কোন অন্যায় আবদারে সায় না দিতে জোর দাবি জানান।

সভায় উপস্থিত ছিলেন জাতীয় শ্রমিক লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির ক্রাফট ফেডারেশন বিষয়ক সম্পাদক বখতিয়ার উদ্দিন খান, জাতীয় শ্রমিক লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক যুগ্ম সম্পাদক মাহফুজুর রহমান খান, বাংলাদেশ মুক্ত গার্মেন্ট শ্রমিক ইউনিয়ন ফেডারেশনের চন্দন কুমার দে, গার্মেন্ট শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন কেন্দ্রের দিলীপ কুমার নাথ, জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশনের মো. ফয়েজ আহম্মদ, বাংলাদেশ গার্মেন্টস অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল ওর্য়াকার্স ফেডারেশনের আবুল কালাম আজাদ, বাংলাদেশ শ্রমিক সংহতি ফেডারেশনের মো. মোরশেদ আলম, আলোকিত গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশনের শ্যাম দুলাল দেব বর্মন, বাংলাদেশ গার্মেণ্টস শ্রমিক সংহতি ফেডারেশনের মো. ইউছুপ, বাংলাদেশ জাতীয় শ্রমিক কর্মচারী পরিষদের মো. সোহেল হক, বাংলাদেশ বিপ্লবী গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশনের মো. আবুল কাশেম, গ্রীন বাংলা গার্মেণ্টস ওর্য়াকার্স ফেডারেশনের মো. সোহাগ হোসেন, বাংলাদেশ রেডিমেড গার্মেন্টস অ্যান্ড টেক্সটাইলস ওর্য়াকাস ফেডারেশনের মো. হারুন, টেক্সটাইল গার্মেন্টস ওর্য়াকার্স ফেডারেশনের রোজি বেগম, গার্মেণ্টস শ্রমিক সংহতি ফেডারেশনের মো: সালাউদ্দিন পারভেজ, বাংলাদেশ লেবার ফেডারেশনের আবু আহমেদ মিঞা।

খবর বিজ্ঞপ্তির

Share This Post

আরও পড়ুন