মঙ্গলবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২:০২ পূর্বাহ্ন

পেকুয়ায় বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে লোকালয়ে পানি; খবর নেই জনপ্রতিনিধিদের

হুমায়ুন কবির
  • প্রকাশ : শনিবার, ২৪ জুলাই, ২০২১
  • ১১৬ Time View

পেকুয়া, কক্সবাজার: কক্সবাজার জেলার পেকুয়া উপজেলার উপকূলীয় এলাকা উজানটিয়া ইউনিয়নের সাত নম্বর ওয়ার্ডের গোদার পাড়া বীর বাপের মসজিদ থেকে ছয় নম্বর ওয়ার্ডের নেজাম ফকির বাড়ি পর্যন্ত দুই কিলোমিটার ২০ মিটার প্রস্থের রাস্তা ভেঙ্গে এখন অবশিষ্ট প্রায় এক ফুট। স্হানীয়দের অভিযোগ, প্রায় এক যুগেরও বেশি সময় ধরে সংস্কার হয়নি রাস্তাটি। প্রতি বর্ষা মৌসুমে অতি বৃষ্টি ও মাতামুহুরী নদীর ভরা জোয়ারের পানিতে তলিয়ে যায় রাস্তা ও ইউনিয়নের ছয় ও সাত নম্বর ওয়ার্ডের ঘরবাড়ী।

স্হানীয় জনপ্রতিনিধিরা ভোটের সময় সংস্কারের আশ্বাস দিলেও এক যুগের বেশি সময় ধরে সংস্কার হয়নি এ রাস্তা। এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন এলাকার সাধারণ জনগণ।

স্থানীয় আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, ‘উজানটিয়া সাত নম্বর ওয়ার্ডের গোদার পাড়া সংলগ্ন বীর বাপের জামে মসজিদ থেকে ছয় নম্বর ওয়ার্ডের আতার আলী পাড়া নেজাম ফকির পর্যন্ত প্রায় দুই কিলোমিটার প্রস্থ ২০ ফিটের পুরোনো ওয়াব্দা রাস্তা একেবারে হাঁটা চলার অনুপযোগী হয়ে গেছে। এক যুগ ধরে জনপ্রতিনিধিদের অবহেলায় পড়ে আছে এ রাস্তা। ইউনিয়ন পরিষদের গত দুই নির্বাচনের আগে জনপ্রতিনিধিরা এসে রাস্তার সংস্কারের প্রতিশ্রুতি দিয়ে ভোট চেয়ে চলে যান, পরে আর তাদের দেখা মিলেনি। নির্বাচিত হয়ে গেলে জনপ্রতিনিধিরা শোষকে পরিণত হয়ে দায়বদ্ধতা ভুলে যায়।’

তিনি এলাকাবাসীর পক্ষ থেকে দ্রুত এ রাস্তা সংস্কারের দাবি জানান।

ছয় নম্বর ওয়ার্ডের জনপ্রতিনিধি এম ওসমান গনি বলেন, ‘ভোলা খাল ও মাতামুহুরি নদীর বেড়িবাঁধটি আমার ওয়ার্ডে পড়েছে প্রায় তিন কিলোমিটার। তার মধ্যে দুই কিলোমিটার বেড়িবাঁধ ২০১৮ সালে সংস্কার করেছি। আর বাকি এক কিলোমিটার সংস্কারে তদবির করছি।’

Share This Post

আরও পড়ুন