শিরোনাম
সোমবার, ১২ এপ্রিল ২০২১, ০১:৪২ অপরাহ্ন

উনারা এখন রেজাউল করিমের পাশে!

নিজস্ব প্রতিবেদক / ৯৯১ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে
প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ২৪ নভেম্বর, ২০২০

চট্টগ্রাম: করোনার মধ্যেও স্থগিত হওয়া চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (চসিক) আসন্ন নির্বাচন দ্রুত সম্পন্নের দাবিতে আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী মো. রেজাউল চৌধুরী এবং ডেকোরেটার্স, কমিউনিটি হল ও দোকান ব্যবসায়ীদের মধ্যে মত বিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

চট্টগ্রাম ডেকোরেটার্স মালিক সমিতি, কমিউনিটি হল মালিক সমিতি ও দোকান মালিক সমিতির যৌথ উদ্যোগে এ মত বিনিময় সভা মঙ্গলবার বিকালে (২৪ নভেম্বর) চট্টগ্রাম নগরীর একটি কমিউনিটি সেন্টারে অনু্ষ্ঠিত হয়।

চট্টগ্রাম ডেকোরেটার্স মালিক সমিতির সভাপতি ও মেয়র থাকাকালীন আ জ ম নাছির উদ্দীনের ঘনিষ্ঠজন ব্যবসায়ী মো. সাহাব উদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন আ জ ম নাছিরেরই আরেক ঘনিষ্ঠজন সাংবাদিক চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী ফরিদ।

মেয়র থাকাকালীন আ জ ম নাছিরের সাথে সখ্যতা ছিল এ দুইজনের। তারা এখন দাঁড়িয়েছেন রেজাউল করিমের পাশে!

এ দিকে শীতের সাথে পাল্লা দিয়ে মরনখাকি করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ বাড়লেও ওই সভা থেকে আগামী ১৫ ডিসেম্বরের মধ্যে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন সম্পন্ন করতে নির্বাচন কমিশনের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন রেজাউলপন্থী ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ। তাদের এ আহ্বানের সাথে কণ্ঠ মিলিয়েছেন মেয়র প্রার্থী রেজাউল করিম ও সাংবাদিক চৌধুরী ফরিদও!

মত বিনিময় সভায় রেজাউল পন্থী ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ বলেন, ‘দীর্ঘ দিন ধরে ওয়ার্ড অফিসগুলো কর্মহীন হয়ে আছে। স্থানীয় ক্ষুদ্র ব্যাবসায়ীরা নানা ধরনের সমস্যা ও বিপাকের সম্মূখীন হচ্ছেন। ট্রেড লাইসেন্স গ্রহণ, নবায়ন, জন্মনিবন্ধন, জাতীয়তা সনদ, প্রত্যয়ন পত্র সংগ্রহ ও প্রয়োজনীয় নানা কাজ নিয়ে আমরা ব্যাপক সমস্যায় রয়েছি। অধুনা সাধারন জনগণও একই সমস্যার সম্মূখীন হচ্ছেন। চট্টগ্রামের মত বাণিজ্যিক মহানগরের নাগরিক সেবার সর্বোচ্চ সংস্থা সিটি কর্পোরেশন দীর্ঘ দিন এভাবে চলতে পারে না।’

তারা আরও বলেন, ‘বিষয়গুলো অত্যন্ত গুরুত্বের সাথে বিবেচনায় এনে আগামীর ডিসেম্বরের মাঝা-মাঝি সময়ের আগেই যে কোনো সুবিধাজনক সময়ে সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন আয়োজনের প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নির্বাচন কমিশন গ্রহণ করবে: এটা আমাদের কেবল প্রত্যাশাই নয়, আমাদের জোরালো দাবিও বটে।

সভায় উপস্থিত ব্যবসায়ীদের উদ্দেশ্যে মেয়র পদপ্রার্থী রেজাউল করিম বলেন, ‘রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশে কিছু আসনে সংসদ উপ নির্বাচন, উপজেলা পরিষদ, ইউনিয়ন পরিষদ ও পৌর কর্পোরেশনের মত স্থানীয় নির্বাচন পর্যায়ক্রমে আয়োজন করে যাচ্ছে নির্বাচন কমিশন। সে হিসেবে আমরা নিশ্চিত ধরে নিতে পারি চট্টগ্রামের মত গুরুত্বপূর্ণ সিটির মেয়র ও কাউন্সিলর নির্বাচনও অচিরেই অনুষ্ঠিত হবে। কমিশনের প্রতি পুরোপুরি আস্থা ও সম্মান রেখেই আগামী মাসের মাঝা-মাঝি সময়ের মধ্যে এ নির্বাচন আয়োজনে আপনাদের যৌক্তিক প্রত্যাশাকে আমি জোর সমর্থন জানাই।’

এ সময় সাংবাদিক চৌধুরী ফরিদ বলেন, ‘দেশের সর্বত্র স্থানীর সরকার নির্বাচন ও জাতীয় সংসদের উপ নির্বাচন হচ্ছে। চট্টগ্রামেও উপজেলা, ইউনিয়ন পর্যায়ে নির্বাচন হয়েছে, হতে যাচ্ছে। সিটি কর্পোরেশনের ক্ষেত্রে এর ব্যত্যয় ঘটার যুক্তি সংগত কোন কারণ থাকতে পারে না।’

আঁখি মজুমদারের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ দোকান মালিক সমিতি চট্টগ্রাম জেলা শাখার সাধারণ সভাপতি সালেহ আহমেদ সুলতান, সহ সভাপতি নুরুল কবির, সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ খুরশেদ আলম, চট্টগ্রাম কমিউনিটি সেন্টার মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মো. সাইফুদ্দীন চৌধুরী দুলাল, চট্টগ্রাম ডেকোরেটার্স মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক সাজেদুল আলম চৌধুরী মিল্টন, চট্টগ্রাম কনভেনশন হল মালিক সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রাজন কুমার দাশগুপ্ত, পৌর জহুর হকার্স মার্কেটের সাধারণ সম্পাদক আবুল কাশেম।

add

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ