বুধবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৮:৫১ পূর্বাহ্ন

চট্টগ্রামে হারুন ও রিমনকে গ্রেফতারে বিএনপির নিন্দা ও প্রতিবাদ

পরম বাংলাদেশ ডেস্ক
  • প্রকাশ : সোমবার, ৫ জুলাই, ২০২১
  • ৪৬ Time View

চট্টগ্রাম: চট্টগ্রাম মহানগর যুবদলের সহ-সভাপতি মিয়া মোহাম্মদ হারুন খান ও মহানগর ছাত্রদলের সাবেক সহ-সভাপতি এন মোহাম্মদ রিমনকে গ্রেফতারের ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিএনপি।

সোমবার (৫ জুলাই) সন্ধ্যায় গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে বিএনপির নেতৃবৃন্দ গ্রেপ্তারকৃতদের দ্রুত মুক্তি দাবি করেন।

বিবৃতিদাতারা হলেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান মীর মো. নাছির উদ্দীন, চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা বেগম রোজী কবির, গোলাম আকবর খন্দকার, এসএম ফজলুল হক, চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবের রহমান শামীম, চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক শাহাদাত হোসেন, সদস্য সচিব আবুল হাশেম বক্কর, দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক আবু সুফিয়ান ও সদস্য সচিব মোস্তাক আহমেদ খান।

বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ বলেন, ‘প্রহসনমূলক নির্বাচনের মাধ্যমে জোর করে রাষ্ট্র ক্ষমতা দখলকারী বর্তমান শাসকগোষ্ঠী দেশব্যাপী বিএনপি নেতা কর্মীদের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রণোদিত মামলা দায়ের করে গ্রেফতারের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়ে ভয়াবহ দুঃশাসনের এক জঘন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে। সরকার নিজেদের কর্তৃত্ববাদী শাসন পাকাপোক্ত করতেই বিরোধী মতের নেতাকর্মী ও জনগণের ওপর হিংস্র আচরণ অব্যাহত রেখেছে। বিভিন্ন বাহিনীকে অন্যায়ভাবে নিজেদের হীন স্বার্থে অপব্যবহার করে সরকার তাদেরকে জনগণের মুখোমুখী দাঁড় করাচ্ছে। মানুষের কল্যাণে কাজ না করে ক্ষমতার দাম্ভিকতায় ত্রাস সৃষ্টির মাধ্যমে দেশকে গভীর সঙ্কটে নিপতিত করছে। সারা দেশে গুম, খুন, অপহরন ও বিচারবর্হিভূত হত্যা চালিয়ে দেশকে ত্রাসের রাজ্যে পরিণত করেছে।’

নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, ‘গ্রেপ্তারকৃত যুবদল নেতা মিয়া মো. হারুন খান নগরীর মনসুরাবাদ এলাকার মিয়াবাড়ীর এক সম্ভ্রান্ত পরিবারের সন্তান। তাদের পরিবারের প্রতিষ্ঠিত স্কুলের ব্যক্তিগত ও পারিবারিক বিষয়কে রাজনৈতিকভাবে রূপ দিয়ে তাকে অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করা হয়েছে। অপর দিকে, মহানগর ছাত্রদল নেতা এন মোহাম্মদ রিমনকে তার ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান থেকে বিনা ওয়ারেন্টে পুলিশ গ্রেফতার করে নিয়ে গেছে। এ ভয়াবহ করোনা পরিস্থিতি মধ্যেও সরকারের নিষ্ঠুর আচরণ থেমে নাই। তারা ফ্যাসিবাদী কায়দায় জনঅধিকার কেড়ে নিচ্ছে এবং কল্পকাহিনী রচনা করে বিরোধী দলের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে। আর এরই ধারাবহিকতায় মিয়া হারুন ও রিমনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।’

নেতৃবৃন্দ দ্রুত মিয়া মো. হারুন খান ও এন মো. রিমনসহ বিএনপি এবং অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের গ্রেফতারকৃত নেতাকর্মীদের মুক্তি ও গ্রেফতার অভিযান বন্ধের জোর দাবি জানান।

প্রেস বার্তা

Share This Post

আরও পড়ুন