ঢাকামঙ্গলবার, ৪ঠা অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
আজকের সর্বশেষ সবখবর

চকবাজারে মিনি পতিতালয়; সাত নারী-পুরুষ গ্রেফতার গোপন খবরে

নিজস্ব প্রতিবেদক
মে ১৮, ২০২১ ১১:১৫ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

চট্টগ্রাম: পতিতালয় স্থাপন করে পতিতাবৃত্তি কাজে সহায়তার দায়ে সাত নারী-পুরুষকে গ্রেফতার করেছে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) চকবাজার থানা পুলিশ।

সোমবার (১৭ মে) সন্ধ্যায় চট্টগ্রাম সিটির চকবাজার থানাধীন আরামবাগ আবাসিক এলাকাস্থ সবুর কলোনীর ভিতর থেকে তাদেরকে গ্রেফতার করাা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা হল- মমতাজ বেগম প্রকাশ বেবী (৪০), রুমা বেগম (২৮), মো. রুবেল হোসেন (২০), মো. লিটন মিয়া (২১), রুমি আক্তার (৩০), শিউলি আক্তার প্রকাশ আনু (২৩) ও জেসি আক্তার (২০)।

সিএমপির জন সংযোগ শাখা জানায়, চকবাজার থানা পুলিশের কাছে একটি গোপন খবর আসে যে, চকবাজার থানার আরামবাগ আবাসিক এলাকার সবুর কলোনীর ভিতর নারী ও পুরুষের সংঘবদ্ধ মিলিত একটি চক্র মিনি পতিতালয় স্থাপন করে যুব সমাজকে পতিতাবৃত্তিতে প্রলুদ্ধ করে ধ্বংসের দিকে নিয়ে যাচ্ছে। এ খবরের প্রেক্ষিতে অভিযানে ঘটনাস্থলে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে সাতজন নারী-পুরুষ পালানোর চেষ্টা করে। এ সময় চকবাজার থানা পুলিশ ওই সাতজনকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃতদের জিজ্ঞাসাবাদে পুলিশ জানতে পারে, মমতাজ বেগম প্রকাশ বেবী ও রুমা বেগম মিলে তাদের বর্তমান ঠিকানার বাসাটি ভাড়া নিয়ে মিনি পতিতালয় হিসেবে ব্যবহার করছে। তাদের নির্দেশনায় মো. রুবেল হোসেন, মো. লিটন মিয়া, রুমি আক্তার, শিউলি আক্তার প্রকাশ আনু এবং জেসি আক্তার এলাকার বিভিন্ন যুবক ও কিশোরদেরকে ডেকে এনে পতিতাবৃত্তি করতে সহায়তা করে।

এলাকার লোকজনের সাথে কথা বলে পুলিশ জানতে পারে, দীর্ঘ দিন ধরে মমতাজ বেগম প্রকাশ বেবী ও রুমা বেগম মিলে তাদের বর্তমান ঠিকানার বাসায় পতিতালয় স্থাপন করে চকবাজার থানা এলাকাসহ বিভিন্ন এলাকা থেকে খদ্দের ডেকে নিয়ে এসে পতিতাবৃত্তির মাধ্যমে অবৈধভাবে লাভবান হত। তারা ওখানে মিনি পতিতালয় স্থাপন করে বিভিন্ন প্রলোভনের মাধ্যমে যুব সমাজকে পতিতাবৃত্তিতে প্রলুদ্ধ করে ধ্বংসের দিকে ঠেলে দিচ্ছে।

এ ঘটনায় গ্রেফতারকৃতদের বিরুদ্ধে চকবাজার থানায় মানবপাচার প্রতিরোধ ও দমন আইনে নিয়মিত মামলা করা হয়েছে।

Facebook Comments Box